ফাইয়াজ ইসলাম ফাহিম এর কবিতা ”যশোহর কন্যা কে মুক্তি দিলাম”

যশোহর কন্যা কে মুক্তি দিলাম

আমি তোমায় ক্ষমা করে দিয়েছি  হে তিলোত্তমা যশোহর কন্যা
তবে নিজেকে ক্ষমা করতে পারিনি
আমি তো তোমার ভালবাসায় অভিশপ্ত
নিজেকে ক্ষমা করি কেমনে?

তবে আমি আজও কিসে সারমেয়’র মতো করে তোমার পিছে
ছুঁটছি তা অবিদিত
ও ছুটবো না কেন সাড়ে চার বছরের সম্পর্ক
গভীর রাতে স্মৃতিগুলো মম মন কে তারা উদ্বেল করে তোলে।

হাজার হাজার ম্যাসেজ মস্তিষ্কে সাইরেন বাজায়
শত শত মিনিট কর্ণে প্রেমের মাইক বাঁজায়,
তোমার অদ্ভুদ হাসি
বক্ষে প্রেমের বোমা নিক্ষেপ করে।

তোমাকে নিয়ে লেখা সাড়ে তিনশতাধিক কবিতা
গুলো ভালবাসার আর্জি  জানায়,
তোমার মন দরগায় যেতে
বারংবার ইচ্ছা পোষণ করে।

সাত বার ব্লক সাত বার ফ্রেন্ড রিকুয়েস্ট
মম ভালবাসা কে দৃঢ় করে,
তোমার অভদ্রতা তোমার অহংকার আমার প্রেম চোখের
রঙিন চশমা ছিল।

গাজীপুর ভাওয়াল রাজবাড়ি’র বিশ্রামাগার জানে
জয়দেবপুর রেলওয়ে ষ্টেশন জানে
ফুল কন্যা গোলাপ জানে
প্রেমিকদের খাদ্য পিঁজ্জা, বার্গার জানে
গাজীপুরের রাজপথ জানে
আমি তোমায় কত্ত ভালবাসি।

এখন শুধু আমি আর তুমি জানি না
কে কাকে ভালবাসি,
বড় আশ্চর্য তুমি আর আমি
হে ভালবাসা  তুমি এখনো জীবন্ত আমার কবিতায়
তবে কে কাকে বেশি ভালবাসে তুমি নিজেই  সাবুত করে নিও
আমি আজ থেকে সত্যি যশোহর কন্যা কে মুক্তি দিলাম
তুমি যশোহর কন্যার দেখভাল করিও?