বাগেরহাটে স্বামীকে হত্যা চেষ্টার অভিযোগে স্ত্রী আটক

বাগেরহাটের শরণখোলায় স্বামীকে গলাকেটে হত্যা চেষ্টার অভিযোগে কুমকুম আক্তার শিমুকে (২৩) নামে একজনকে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার (২৩ মার্চ) সকাল ১০টার দিকে পালিয়ে যাওয়ার সময় শরণখোলা উপজেলার কেয়ার বাজার এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়।
এর আগে শনিবার রাত সাড়ে তিনটার দিকে পারিবারিক কলহের জেরে উপজেলার দক্ষিণ বাধাল গ্রামের বাড়িতে নিজ ঘরে ¯^ামী রোমান মৃধাকে গলাকেটে হত্যা করার চেষ্টা করে কুমকুম আক্তার। পরে রোমানের ডাক চিৎকারে আশপাশের লোকেরা আসলে কুমকুম পালিয়ে যায়।পরে রোমানকে উদ্ধার করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায় স্থানীয়রা।রোমান একই গ্রামের নজির আহম্মেদ মৃধার ছেলে।
রোমানের মা রেনু বেগম জানান, ৮ মাস পূর্বে নড়াইল জেলার লোহাগড়া উপজেলার কোটাকোল গ্রামের মৃত শেখ হারুন অর রশিদের মেয়ের সাথে প্রেমের সম্পর্কের মাধ্যমে বিয়ে হয়।এরপর থেকে একসঙ্গে থাকা-খাওয়া করতাম আমরা। দুইদিন আগে ওদের দুজনের মধ্যে জগড়া-বিবাদ হয়।এরপর রাতে পাশের রুমে গোঙ্গানীর শব্দ শুনে রোমানের ঘরে ঢুকে দেখি কুমকুমের হাতে দাও। আমাকে দেখে কুমকুম ঘর থেকে পালিয়ে যায়।
শরণখোলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলিপ কুমার সরকার বলেন, খবর শুনে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। সকালে পালিয়ে যাওয়ার সময় কেয়ার বাজার থেকে কুমকুমকে আটক করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে পরকীয়ার কারণে ¯^ামীকে হত্যার চেষ্টা করেছে বলে স্বীকার করেছে কুমকুম। মামলার প্রস্তুতি চলছে।আশঙ্কাজনক অবস্থায় আহত রোমানকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন এ কর্মকর্তা।