দুবলার চর থেকে ১০ শিশু শ্রমিক উদ্ধার, আটক ১

নিজস্ব প্রতিবেদক.
সুন্দরবনের দুবলার চর থেকে এক অপহরণকারীকে আটকসহ অপহৃত ১০ শিশু শ্রমিককে উদ্ধার করেছে কোস্টগার্ড। শুক্রবার রাত ১২ দিকে দুবলার মাঝেরকেল্লা চর থেকে কোস্টগার্ডের সদস্যরা এদের উদ্ধার করে।
উদ্ধারকৃত অপহৃত শিশুরা হলো, কিশোরগঞ্জ জেলার বায়জিদপুর থানার মৃত নুরউদ্দিন মিয়ার ছেলে রেণু মিয়া, মৃত আক্কাস আলীর ছেলে মোঃ মানিক হোসেন, হোসেনপুর থানার মোঃ আব্দুল মোতালেবর ছেলে মোঃ আক্তার, চাঁদপুর জেলার হাজীগঞ্জ থানার মৃত আক্কাস আলীর ছেলে মোঃ হৃদয়, ময়মনসিংহ জেলার গফরগাঁও থানার মৃত কিতাব আলীর ছেলে মোঃ টুটুল মিয়া, তারাকান্দ থানার মোঃ মোখলেসুর রহমানের ছেলে মোঃ রিমন, হবিগঞ্জ জেলার মংলাবাজার থানার মোঃ জসিমের ছেলে মোঃ মনির হোসেন, নোয়াখালী জেলার সেনবাগ থানার জালু মিয়ার ছেলে মোঃ আল আমিন, চট্টগ্রাম জেলার কোতোয়ালী থানার মোঃ আব্দুল খালেকের ছেলে মোঃ আমির হোসেন, আব্দুল মালেকের ছেলে মোঃ আরিফ ও কুষ্টিয়া জেলার শেখপাড়া থানার কচির উদ্দিনের ছেলে মোঃ পারভেজ।
মোংলা কোস্টগার্ড পশ্চিম জোনের গোয়েন্দা কর্মকর্তা লেঃ আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ জানান, আটক অপহরণকারী হচ্ছেন চট্রগ্রাম জেলার বাঁশখালী উপজেলার মৃত ফরিদ মিয়ার ছেলে মোঃ নুরুল হক ওরফে লেদু মিয়া। সে এসব শিশুদের দেশের বিভিন্নস্থান থেকে অপহরণ করে কাজের প্রলোভন দেখিয়ে দুবলার চরে নিয়ে আটকে রেখে শিশু শ্রমে বাধ্য করছিল। উদ্ধারকৃত শিশুরা দুবলার মাঝেরকেল্লা চরে শুটকি তৈরির কাজ করছিল। কোস্টগার্ড পশ্চিম জোনের আওতাধীন দুবলা টহল টিম শুক্রবার রাত ১২টার দিকে ওই চর থেকে ১০ শিশু শ্রমিককে উদ্ধার করে। এ সময় মোঃ নুরুল হক ওরফে লেদু মিয়া নামে এক অপহরণকারীকে আটক করে অভিযানকারীরা। অপহরণকারী মোঃ নুরুল হক ওরফে লেদু মিয়া এদেরকে বিভিন্ন জায়গা থেকে কাজ দেয়ার কথা বলে বোটযোগে দুবলা চরের শুটকি পল্লীতে নিয়ে যায় বলে কোস্টগার্ড’র এ কর্মকর্তা জানান। আটক অপহরণকারী ও অপহৃতদের বাগেরহাটের শরণখোলা থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলেও জানায় কোস্টগার্ড।#