মোংলায় পুলিশের মাস্ক বিতরণ, সতর্ক না হলে কঠোর ব্যবস্থা

মোংলা প্রতিনিধি. মোংলায় মাস্ক বিহীন চলাচলকারীদেরকে মুখে মাস্ক পরিয়ে দিয়েছেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রনালয়ে উপমন্ত্রী হাবিবুন নাহার। বৃহস্পতিবার দুপুরে পৌর শহরের চৌধুরীর মোড়, শেখ আ: হাই সড়ক, কমিশনার সফিউল্লাহ সড়ক ও শাহাদাৎতের মোড় এলাকায় মাস্ক বিহীন চলাচলকারী নারী, পুরুষ ও শিশুদেরকে মুখে তিনি নিজ হাতে মাস্ক পরিয়ে দেন। এছাড়া সকলকে বাধ্যতামূলক মাস্ক পরার পরামর্শ দেন। এ সময় মোংলা থানা পুলিশের পক্ষ থেকে সকল জনসাধারণের মাঝে মাস্ক বিতরণ ও মাস্ক ব্যবহারে উদ্ভুদ্ধ করা হয়। মাস্ক পরানো ও বিতরণকালে উপমন্ত্রী হাবিবুন নাহারের সাথে ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার কমলেশ মজুমদার, সহকারী কমিশনার (ভূমি) নয়ন কুমার রাজবংশী, মোংলা-রামপাল সার্কেলের সিনিয়র পুলিশ সুপার মো: আসিফ ইকবাল, মোংলা থানার অফিসার ইনচার্জ মো: ইকবাল বাহার চৌধুরীসহ পুলিশ সদস্যরা। এর আগে ‘করোনা ভাইরাসের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন, ও ‘নো মাস্ক, নো মুভমেন্ট’ শ্লোগানে মোংলা থানা পুলিশের আয়োজনে একটি সচেতনামূলক প্রচারভিযান পৌর শহর প্রদক্ষিণ করে। প্রচারভিযান শেষে মোংলা থানার অফিসার ইনচার্জ মো: ইকবাল বাহার চৌধুরী বলেন, থানা পুলিশের উদ্যোগে বৃহস্পতিবার অসচেতনদেরকে মাস্ক পরিয়ে দেয়ার পাশাপাশি তাদেরকে নিয়মিত মাস্ক ব্যবহারের পরামর্র্শ ও নিদের্শনা দেয়া হয়েছে। এরপর থেকে পথেঘাটে ও দোকানপাটে কেউকে মাস্ক বিহীন পাওয়া গেলে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার কমলেশ মজুমদার বলেন, পৌরসভার ডিজিটাল মাইকে সার্বক্ষনিক সকলকে মাস্ক ব্যবহারের জন্য প্রচারণা চালানো হচ্ছে। এছাড়া সরকারী-বেসরকারী সকল প্রোগ্রামেও সকলকে মাস্ক ব্যবহার বাধ্যমূলক করতে নিদের্শনা দেয়া হচ্ছে। তারপরও যদি জনসাধারণ সতর্ক না হন এবং মাস্ক পরিধান না করেন তাহলে তাদেরকে জেল-জরিমানাসহ কঠোর আইনের আওতায় আনা হবে।